শেয়ার বাজার মিউচুয়াল ফান্ড পোস্ট অফিস স্কিম ব্যাঙ্ক স্কিম ক্রেডিট কার্ড ডিমেট অ্যাকাউন্ট ইন্সুরেন্স সমস্ত FD ক্যালকুলেটর

PM Mudra Yojona: প্রধানমন্ত্রী মুদ্রা যোজনা লোন কিভাবে পাওয়া যাবে দেখুন

Photo of author

By Anjan Mahata

গ্রুপে যুক্ত হনচ্যানেলে যুক্ত হন

PM Mudra Yojona: ভারত সরকার প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ২০১৫ সালে ভারতের সাধারণ নাগরিকের ব্যবসায় সাহায্য করার জন্য প্রধানমন্ত্রী মুদ্রা যোজনা ঋণ প্রকল্পের উদ্বোধন করেন। এই প্রকল্পে ভারতের যেকোনো সাধারণ নাগরিক ১০ লক্ষ টাকা পর্যন্ত ব্যবসার ঋণ এর সহায়তা পাবে। প্রধানমন্ত্রী মুদ্রা যোজনা তে কোনোরকম প্রক্রিয়াকরণ ভি দিতে হবে না, এই প্রকল্প অনুযায়ী লোন ৫ বছরের মধ্যে পরিশোধ করতে হবে। মুদ্রা যোজনা ঋণ নেওয়ার জন্য এই প্রকল্পের কর্মসূচির অধীনে মুদ্রা ঋণের জন্য একটি মুদ্রা কার্ড জারি করা হয়েছে।এই প্রকল্পে কিভাবে ঋণ নেওয়া যাবে তা সম্পূর্ণ বিস্তারিতভাবে আলোচনা করা হয়েছে।

প্রধানমন্ত্রী মুদ্রা যোজনা প্রকল্পের উদ্দেশ্য:

ভারত সরকার প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি আমাদের দেশের আর্থিক উন্নয়নের উদ্দেশ্যে এবং সাধারণ নাগরিকদের ব্যবসার প্রতি উৎসাহ প্রদানের উদ্দেশ্যে এই মুদ্রা যোজনা প্রকল্প চালু করেন। এই প্রকল্প দ্বারা সরকার বিভিন্ন ছোট ব্যবসায়ীদের আর্থিক উন্নয়নের জন্য এই লোনের সুবিধা প্রদান করেছেন। যাতে করে যে সমস্ত ব্যবসায়ী নিজের ব্যবসাকে দাঁড় করাতে পারেননি তারা তাদের ব্যবসাতে উন্নতি করতে পারে। এই প্রকল্প দ্বারা ভারতের সাধারণ নাগরিক খুব সহজে নিজের ব্যবসা প্রতিষ্ঠার জন্য ঋণ পেতে পারে।

প্রধানমন্ত্রী মুদ্রা যোজনা ঋণ এর যোগ্যতা:

এই প্রকল্পে যেকোন ভারতীয় নাগরিক ঋণ নেওয়ার যোগ্য কিন্তু তবুও তারা যে ঋণ নেবে তা কি কাজে লাগাবে তার উৎস দেখাতে হবে। কোন নাগরিক একজন কারিগর হিসেবে ঋণ পেতে পারে,আবার কোন নাগরিক ক্ষুদ্র উৎপাদনকারী হিসেবে ঋণ পেতে পারে, কোন ছোটো দোকানদার মুদ্রার ঋণ নিতে পারে, মুদি -বিক্রেতা সবজি- বিক্রেতা ফল -বিক্রেতা মুদ্রা ঋণ নিতে পারে , এছাড়া যে সমস্ত নাগরিক অন্যান্য ক্ষুদ্র ব্যবসা চালিয়ে যাচ্ছেন তারা এই ঋণ পেতে পারেন। প্রধানত সরকার এ ঋণ সাধারন ছোট ব্যবসায়ীদের উদ্দেশ্যে বিতরণ করছে। ভারতীয় যে কোন নাগরিক পাবলিক প্রাইভেট রিজিওনাল স্মল ফাইন্যান্স ব্যাংক ও NBFC থেকে প্রায় ১০ লক্ষ টাকা ঋণ পেতে পারে। এছাড়াও বিভিন্ন ব্যাংক বিভিন্ন শর্তাবলির মাধ্যমে এই ঋণ দিয়ে থাকে।

প্রধানমন্ত্রী প্রধানমন্ত্রী মুদ্রারিন এর ক্যাটাগরি:

এই লোন প্রধানত তিনটি ক্যাটাগরির মাধ্যমে দেওয়া হয়ে থাকে। যেকোনো ভারতীয় সুবিধাবী ক্ষুদ্র ইউনিট উদ্যোক্তার বৃদ্ধি বিকাশ এবং তহবিলের উদ্দেশ্যে এই তিন ভাগে ঋণ দেওয়া হচ্ছে- শিশু ঋণ ,কিশোর ঋন, তরুন ঋণ ইত্যাদি নামকরণ দেওয়া হয়েছে।

  • শিশু ঋণ: এ ঋণটি প্রধানত প্রাথমিক পর্যায়ে থাকা ব্যবসায়ীদের জন্য দেওয়া হয়ে থাকে। যার মধ্যে উদ্যোক্তারা আবেদনকারীদের ৫০ হাজার টাকা পর্যন্ত লোন দিয়ে থাকে। ক্ষুদ্র ব্যবসায়ীদের জন্য অ্যালোন তাই এর নাম দেওয়া হয়েছে শিশু ঋণ।
  • কিশোর ঋণ: এই ঋণটিতে প্রধানত তাদের জন্য যারা দ্বিতীয় পর্যায়ের ব্যবসায়ী অর্থাৎ ইতিমধ্যে তাদের ব্যবসা শুরু করেছে এবং তাদের ব্যবসা চালানোর জন্য অতিরিক্ত টাকার প্রয়োজন। এই ক্যাটাগরিতে আবেদনকারী ব্যবসায়ীদের ৫০ হাজার টাকা থেকে ৫ লক্ষ টাকা পর্যন্ত লোন দেওয়া হয়ে থাকে।
  • তরুণ ঋণ: এই ঋণে প্রধানত তাদের লোন দেওয়া হয়ে থাকে যারা একটি স্ট্যাটাস লোনের জন্য আবেদন করার যোগ্য সর্বোচ্চ স্তরের ব্যবসায়ী। এই ক্যাটাগরিতে আবেদনকারী ব্যবসায়ীদের ৫ লক্ষ টাকা থেকে ১০ লক্ষ টাকা পর্যন্ত লোন দেওয়া হয়ে থাকে।

প্রধানমন্ত্রী মুদ্রা যোজনা কার্ড:

যারা যারা প্রধানমন্ত্রী মুদ্রণ ঋণ নিতে চায় তাদের প্রথমে একটি মুদ্রা কার্ড দেওয়া হবে। এই কার্ডটি ডেবিট কার্ড এর মত ব্যবহার করা যাবে। এই মুদ্রা কার্ড শিশু , তরুণ,কিশোর উভয় ক্যাটাগরিদের দেওয়া হবে। এই মুদ্রা কালকের জন্য লোন প্রাপকদের একটি গোপন পাসওয়ার্ড দেওয়া হবে যেটি গোপন রাখতে হবে। প্রাপক এই মুদ্রা কার্ড প্রয়োজনের ভিত্তিতে এটিএম থেকে ঋণ টাকা তুলতে ব্যবহার করতে পারবে। এ কার্ড থেকে প্রয়োজন মত টাকা তুলে ব্যবসায় লাগাতে হবে।

প্রধানমন্ত্রী মুদ্রা যোজনা ফর্ম:

প্রধানমন্ত্রী মুদ্রা যোজনা প্রকল্পে আবেদনের ফর্ম – Downlod PDF

প্রধানমন্ত্রী মুদ্রা যোজনা ঋণ এর আবেদন পদ্ধতি:

২০২০ সালে যেভাবে মুদ্রা যোজনার এই ঋণ এর জন্য আবেদন করতে হতো সেভাবেই 2023 সালেও আবেদন করতে হবে।

  • লোন প্রাপকদের প্রথমে অফিশিয়াল ওয়েবসাইটে(https://www.mudra.org.in/) যেতে হবে। অফিসিয়াল ওয়েবসাইটে গেলে প্রথমে আপনি হোম পেজে থাকবেন।
  • এখানে আপনাকে লগইন বোতামে ক্লিক করতে হবে ক্লিক করার পর আপনার সামনে পাসওয়ার্ড এবং ক্যাপচা কোড দিতে হবে এবং তারপর আবার লগইন বোতামে ক্লিক করতে হবে।
  • এবার আপনার সামনে মুদ্রা পোর্টালের মুদ্রা ঋণের তিনটি ক্যাটাগরি দেওয়া রয়েছে যার মধ্যে তিনটি ক্যাটাগরিতে আবেদন করা হবে।
  • যে ব্যবসায়ী জে কে ডাবের মধ্যে পড়ে তাকে সে ক্যাটাগরিতে ক্লিক করতে হবে। ক্লিক করার পর পরবর্তী পৃষ্ঠাতে আবেদন পত্র প্রদর্শিত হবে।
  • এখান থেকে আবেদন পত্রটি ডাউনলোড করে নিতে হবে। ডাউনলোড করার পর আবেদন পত্রটি প্রিন্ট আউট করে বের করে নিতে হবে।
  • এরপর আবেদন পত্রে যে সমস্ত তথ্যাবলী উল্লেখ করা হয়েছে তা যথাযথভাবে পূরণ করতে হবে।
  • আবেদন পত্রের সঙ্গে যে সমস্ত প্রয়োজনীয় ডকুমেন্টস উল্লেখ করা হয়েছে তা জেরক্স করে দিতে হবে। নিচে প্রয়োজনীয় ডকুমেন্টস এর লিস্ট দেওয়া হয়েছে।
  • এই আবেদনপত্র আপনাকে আপনার স্থানীয় ব্যাংকে পাঠাতে হবে।
  • এক মাসের মধ্যে আপনার আবেদন যাচাই করা হবে এবং তারপর আপনাকে ঋণ দেওয়া হবে।

আবেদনের জন্য প্রয়োজনীয় ডকুমেন্টস:

যেকোনো ছোট ব্যবসায়ী থেকে বড় ব্যবসায়ী পর্যন্ত আবেদনকারী লোন প্রাপকদের নিম্নলিখিত নথিপত্র আবেদন পত্রের সঙ্গে জমা করতে হবে।

  • আধার কার্ড
  • প্যান কার্ড
  • আবেদনকারীর স্থায়ী আবেদন ঠিকানা
  • ব্যবসার ঠিকানা
  • মালিকানার প্রমাণ
  • তিন বছরের ব্যালেন্স শীট
  • বয়সের প্রমাণ পত্র(কমপক্ষে ১৮ বছর বয়সী হতে হবে)
  • আইকর রিটার্ন
  • সো মূল্যায়ন রিটার্ন
  • পাস্পোর্ট সাইজের ফটো

পিএম মুদ্রা যোজনা প্রকল্পের সুবিধা:

  • এই প্রকল্পে যেকোনো ক্ষুদ্র ব্যবসায়ী খুব সহজে কোন সুদের হারে লোন পেয়ে যাবে।
  • এই লোন গ্রামীণ ব্যবসায়ী এবং শহুরে ব্যবসায়ী উভয়েই পেয়ে থাকবে।
    • এই প্রকল্পে নারীদের জন্য লোনের সুদের হার ছাড় দেওয়া হবে।
    • এই স্কিমের লোন শোধ করার সময় ৫ বছর থেকে ৭ বছর বাড়াতে পারবে।
    • এই স্কিমে লোন নেওয়ার জন্য কোন জামানতের প্রয়োজন হবে না।

প্রধানমন্ত্রী মুদ্রা ঋণ প্রকল্পে যে সকল ব্যাংক সুদের হার অফার করছে:

প্রধানমন্ত্রী মুদ্রা প্রকল্পের অনেক বেসরকারি ব্যাংক এবং পাবলিক ব্যাংক সুদের হার অফার করছে। প্রতিটি ব্যাংকে সুদের হার ভিন্ন ভিন্ন অফার করছে যার মধ্যে কিছু নিচে দেওয়া হয়েছে।

  • ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়া : ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়া (BOI) ব্যাংকটি প্রধানমন্ত্রী মুদ্রা স্কিমের জন্য সুদের হার অফার করছে। এই ব্যাংকটি 10.70% থেকে সুদের হার শুরু করছে এবং 3 বছর থেকে 7 বছরের ঋণের মেয়াদের অফার করছে।
  • স্টেট ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়া: প্রধানমন্ত্রী মুদ্রা যোজনা প্রকল্পে স্টেট ব্যাংক অফ ইন্ডিয়া লোন দেওয়ার সঙ্গে সঙ্গে 3 বছর থেকে 5 বছরের মেয়াদ জারি করেছে। এই ব্যাংক মুদ্রা যোজনা প্রকল্পে ঋণের সুদের হার ওভার করেছে 8.60% থেকে 9.85% ।
  • অন্ধ্র ব্যাংক: এই ব্যাংকটিও অন্যান্য ব্যাংকের মতো 3 বছর থেকে ঋণের মেয়াদ শুরু করেছে এবং সুদের হার হিসেবে 8.40% থেকে 10.35% অফার করেছে।
  • সিন্ডিকেট ব্যাংক: এই ব্যাংকটির শর্তাবলীর উপর ভিত্তি করে ঋণের মেয়াদ জারি করেছে এবং 8.60% থেকে 9.85% পর্যন্ত সুদের হার অফার করেছে।
  • তামিলনাদ মার্কেন্টাইল ব্যাংক: এই ব্যাংকটি 9.90% থেকে 12.45% সুদের হার অফার করেছে এবং সাত বছর পর্যন্ত ঋণের মেয়াদ জারি করেছে।

আরও পড়ুন>> পার্সোনাল লোন কি? পার্সোনাল লোন কিভাবে নেবন

আরও পড়ুন>> এইভাবে PhonePe অ্যাপ থেকে বিনা সুধে লোন নিন

11 thoughts on “PM Mudra Yojona: প্রধানমন্ত্রী মুদ্রা যোজনা লোন কিভাবে পাওয়া যাবে দেখুন”

  1. আমি একজন রং প্রিন্টার রঙের জন্য লোন নেওয়া হচ্ছে , আপনাদের কাছে আমি সহযোগিতা চাচ্ছি আমি একজন গরিব পরিবারের ছেলে রংয়ের কাজ করে খেয়ে খাই . অতএব মহাশয় আপনাদের কাছে লোনটা শীঘ্রই করে দেওয়ার জন্য ব্যবস্থা করে দিবেন অতএব স্যার নমস্কার

    Reply
  2. ১০ লক্ষ টাকা লোনের আবেদন প্রধানমন্ত্রীর কাছে আমার আবে

    Reply
  3. আমার একটা ছোট চায়ের দোকান আছে ৷ আমি একটা লোন নিতে চাই ৷ চায়ের দোকান টা ভাড়াতে আছে ৷ আমার ৪ লক্ষ টাকা লোন প্রয়োজন৷

    Reply

Leave a Comment