শেয়ার বাজার মিউচুয়াল ফান্ড পোস্ট অফিস স্কিম ব্যাঙ্ক স্কিম ক্রেডিট কার্ড ডিমেট অ্যাকাউন্ট ইন্সুরেন্স সমস্ত FD ক্যালকুলেটর

Business Idea: প্রতিমাসে ১ লাখ টাকা আয়, ৫০ হাজার টাকার মেশিন কিনে এই ব্যাবসা শুরু করা যাবে

Photo of author

By Joydeep

গ্রুপে যুক্ত হনচ্যানেলে যুক্ত হন

Business Idea: বর্তমানে যে কোন ব্যবসা শুরু করতে গেলে প্রচুর প্রতিযোগিতার সম্মুখীন হতে হয়। আপনি যে ব্যবসায় শুরু করতে চান না কেন আগের থেকে অনেকেই সেই ব্যবসা করছে। তাই আজকে আমরা আপনাদেরকে একটি নতুন ব্যবসার সম্পর্কে জানাবো। পঞ্চাশ হাজার টাকা দিয়ে একটি মেশিন কিনে এই ব্যবসা শুরু করতে পারবেন, এবং প্রতিমাসে ১ লাখ টাকা পর্যন্ত আয় করতে পারবেন। এই ব্যবসা সম্পর্কে বিস্তারিত তথ্য জানতে সম্পূর্ণ নিবন্ধটি পড়ুন। 

৫০ হাজার টাকার মেশিন কিনে এই ব্যাবসা শুরু করা যাবে 

আপনার কাছে যদি ব্যবসা শুরু করার জন্য পুঁজি কম তাহলে ৫০০০০ টাকার একটি 3D প্রিন্টিং মেশিন কিনে এবং একটি দোকান নিয়ে এই ব্যবসা (3D Printing Business) শুরু করতে পারবেন। বর্তমানে ভারতে থ্রিডি প্রিন্টিং এর ব্যবসা খুবই কম, প্রায় নেই বললেই চলে। আপনার শহরে আপনি প্রথম ব্যবসা শুরু করার সুযোগ পাবেন। অন্যরা এই ব্যবসায় নামতে নামতে আপনি নিজের ব্যবসাকে আরো বাড়িয়ে নিতে পারবেন। আপনার যদি এরকম কোন স্থান রয়েছে যেখানে অত্যাধিক খদ্দেরের কাছে পৌঁছানো যাবে, তাহলে ব্যবসার পক্ষে আরো অনেক ভালো হয়। 

কিভাবে এই ব্যাবসা শুরু করবেন? 

ব্যবসা শুরু করার জন্য আপনাকে প্রথমে একটি 3D প্রিন্টিং মেশিন কিনতে হবে। এরপর আপনাকে একটি দোকান ভাড়াতে নিতে হবে। দোকানের অবস্থান যেন একটি ভালো জায়গাতে হয় যেখানে খদ্দের সহজে পৌছাতে পারবে, তাহলে ব্যবসার পক্ষে খুব ভালো হবে। এরপর আপনি আপনার থ্রিডি প্রিন্টিং মেশিনের সাহায্যে গ্রাহকের জন্য নানা ধরনের উপহার ও জিনিস তৈরি করে দিতে পারবেন। 

আরও পড়ুন: ফোনের সাহায্যে প্রতিমাসে ১ লাখ টাকা আয় করুন, অনেকেই এটি জানেনা।

ভাবুন আপনার জন্মদিনে বা বিয়েতে আপনার বন্ধুরা যদি আপনার একটি মূর্তি উপহার দেয় তাহলে কতটা স্পেশাল হবে আপনার কাছে। কিংবা আপনি আপনার শিশুর ছোটবেলার স্মৃতি হিসেবে ছবির পরিবর্তে তার একটি মূর্তি তৈরি করেন তাহলে ব্যাপারটা কতটা ভালো হয়। এই থ্রিডি প্রিন্টিং মেশিনের সাহায্যে যেকোন ছবি থেকে মূর্তি তৈরি করতে পারবেন। 

এছাড়াও কোন জিনিসপত্রের ছবির সাহায্যে ওই জিনিসপত্রটিও বানাতে পারবে। আপনি ছবি থেকে যেকোনো কার্টুন চরিত্রের মূর্তি, খেলনা বা অন্যান্য জিনিসপত্র তৈরি করতে পারবে। এক কথায় বলতে গেলে এই মেশিনটি যেকোনো ছবি থেকে তার বাস্তব জিনিস তৈরি করে দেবে। 

আরও পড়ুন: বাইক থাকলে প্রতিমাসে আয় করুন ৩০,০০০ টাকা, জেনে নিন সম্পূর্ণ পদ্ধতি।

এরপর আপনি আপনার খদ্দেরের প্রয়োজনীয়তা অনুযায়ী তাদের জন্য নানা ধরনের জিনিসপত্র বানিয়ে দিতে পারবেন। তারা আপনার কাছে নিজের মূর্তি, বা নিজের তৈরি করা যেকোন জিনিস তৈরি করাতে পারবেন। এবং ওই জিনিস তৈরি করার পরিবর্তে আপনি তাদের কাছ থেকে টাকা চার্জ করবেন। এছাড়াও আপনি নিজেই কিছু আকর্ষণীয় জিনিসের ছবি তৈরি করে সেগুলি 3D প্রিন্ট করে বাজারে বিক্রি করতে পারেন। এক্ষেত্রে আপনাকে এমন কিছু জিনিস তৈরি করতে হবে যেগুলি বাজারে পাওয়া যায় না। উদাহরণস্বরূপ, আপনি নতুন ধরনের খেলনা বা নতুন ডিজাইনের ঠাকুরের মূর্তি তৈরি করে বাজারে বিক্রি করতে পারেন।

প্রতিমাসে ১ লাখ টাকা আয় 

যেহেতু ভারতে থ্রিডি প্রিন্টিং এর ব্যবসা (3D Printing Business) নেই তাই আপনি বেশি লাভ রেখে নিজের পণ্য বিক্রি করতে পারবেন। এর ফলে আপনি কম খদ্দেরও অধিক আয় করতে পারবেন। আপনার প্রোডাক্টটি খদ্দেরের ইচ্ছে অনুযায়ী বানানো, তাই এর জন্য আপনি অত্যাধিক চার্জ করতে পারবেন। একটি মূর্তি তৈরি করতে যদি আপনার খরচ হয় ১০০ টাকা তাহলে আপনি সেটিকে খুব সহজে ১০০০ টাকায় বিক্রি করতে পারবেন। এরপর ধরুন প্রতিটি জিনিসের মূল্য যদি আপনি ১০০০ টাকা রেখে বিক্রি করেন, তাহলে ১০০ টি জিনিস বিক্রি করতে পারলেই আপনার ১ লক্ষ টাকা রোজগার হবে। আর আপনার দোকান যদি ভালো জায়গাতে থাকে তাহলে প্রতি মাসে ১০০ টির চেয়ে অনেক বেশিও জিনিস বিক্রি হয়ে যাবে, এবং আপনি মাসে ১ লাখ টাকারও অধিক আয় করতে পারবেন। 

আরও পড়ুন: Business Idea – এই বিনা পুঁজির ব্যাবসা শুরু করে বাড়িতে বসেই মাসে ৫০,০০০ টাকা আয় করতে পারবেন।

করা করা এই ব্যাবসা শুরু করতে পারবে? 

3D প্রিন্টিং মেশিন চালানো খুবই সহজ এবং এর সাহায্যে তাড়াতাড়ি জিনিস তৈরি হয়। আপনাকে শুধু ছবি দিতে হবে এবং ছবির বাস্তব আকার তৈরি করে দেবে এই মেশিন। আপনি যদি স্কুল বা কলেজের ছাত্র/ছাত্রী হন অথবা একজন গৃহবধূ হন তবুও এই মেশিন চালাতে পারবেন। একজন প্রবীন নাগরিকও এই ব্যবসা খুব সহজেই শুরু করতে পারবেন। 

আরও পড়ুন: বিনা পুঁজিতে এই নতুন ব্যাবসা করে মাসে ১৫ হাজার টাকার অধিক আয় করতে পারেন, এখনো অনেকে জানেনা।

উপসংহার 

আপনি মাত্র ৫০ হাজার টাকা দিয়ে একটি 3D প্রিন্টিং মেশিন কিনে ব্যবসা শুরু করতে পারেন। এই মেশিনের সাহায্যে আপনি যেকোন ছবি থেকে তার বাস্তব রূপ তৈরি করতে পারবেন। যেমন ধরুন আপনি আপনার খদ্দেরের জন্য তাদের মূর্তি ও খেলনা তৈরি করতে পারবেন। বর্তমানে ভারতে এই ব্যবসা (3D Printing Business) প্রায় নেই বললেই চলে, তাই আপনার জন্য এটি একটি ভালো সুযোগ হতে পারে।

এই ধরনের অর্থনীতি সম্পর্কিত তথ্য সহজ বাংলা ভাষায় পেতে আমাদের সঙ্গে যুক্ত থাকুন 👇

আমাদের হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপJoin Us
আমাদের হোয়াটসঅ্যাপ চ্যানেলFollow Us
আমাদের টেলিগ্রাম চ্যানেলJoin Us
আমাদের ফেসবুক পেজFollow Us
Google নিউজে ফলো করুনFollow Us

13 thoughts on “Business Idea: প্রতিমাসে ১ লাখ টাকা আয়, ৫০ হাজার টাকার মেশিন কিনে এই ব্যাবসা শুরু করা যাবে”

  1. Where can I buy this machine in kolkata. It is not clear how to get technical support. Instalation of the machine. Only advice is not worth to start a business.

    Reply

Leave a Comment