শেয়ার বাজার মিউচুয়াল ফান্ড পোস্ট অফিস স্কিম ব্যাঙ্ক স্কিম ক্রেডিট কার্ড ডিমেট অ্যাকাউন্ট ইন্সুরেন্স FD ক্যালকুলেটর

Credit Score: এই ভুলের কারণে কমবে ক্রেডিট স্কোর! এই ৩টি কাজ এড়িয়ে চলুন।

Photo of author

By Anjan Mahata

গ্রুপে যুক্ত হনচ্যানেলে যুক্ত হন

This mistake will reduce the credit score: বিভিন্ন সময় তাৎক্ষণিক অর্থের প্রয়োজনে আমাদের ব্যাংক থেকে লোন নেওয়ার প্রয়োজন পড়ে। কিন্তু ব্যাংকে লোনের আবেদন করলে ব্যাংক কর্তৃপক্ষের তরফ থেকে আবেদনকারীর ক্রেডিট স্কোরের দিকে বিশেষ গুরুত্ব দেওয়া হয়। লোন আবেদনকারীর ক্রেডিট স্কোর ভালো না হলে ব্যাংকে তরফ থেকে লোন দিতেও অস্বীকার করা হতে পারে। কোন ব্যক্তির ক্রেডিট স্কোর ভালো হলে তিনি দ্রুত এবং কম সুদের হারে ব্যাংক থেকে লোন পেতে পারেন। এই কারণে ব্যাংক গ্রাহকদের নিজস্ব ক্রেডিট স্কোর ভালো রাখা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ।

এই ভুলের কারণে কমবে ক্রেডিট স্কোর

তবে অনেক সময় দেখা যায় সঠিক সময়ে ইএমআই দিলেও ক্রেডিট স্কোর কিছুতেই ঊর্ধ্বমুখী হয় না। বরং গ্রাহকের কিছু ভুল কাজের জন্য ক্রেডিট স্কোর ১০০-র নিচেও নামতে পারে। ঠিকমতো ইএমআই দেওয়ার পরেও যদি ক্রেডিট কর কমে যায়, তবে অবশ্যই জেনে রাখা প্রয়োজন ক্রেডিট স্কোর ঠিক কি কি কারণে কমে যেতে পারে। ক্রেডিট স্কোর কমে যাওয়ার আসল কারণ গুলি জেনে সেই সমস্যার সমাধান করলে তবেই আবার গ্রাহকের ক্রেডিট করে বাড়বে এবং তিনি সহজেই ঋণ গ্রহণ করতে পারবেন। দেখে নিন ক্রেডিট কর কমে যাওয়ার প্রকৃত কারণগুলি।

১) ন্যূনতম বকেয়া পরিশোধ

বর্তমান সময়ে বহু গ্রাহকের কাছেই ক্রেডিট কার্ড থাকে। দৈনন্দিন জীবনে বহু ক্ষেত্রেই তারা এই ক্রেডিট কার্ড ব্যবহার করে থাকেন। তবে ক্রেডিট কার্ডে বিলের পরিমাণ যদি বেশি হয় সেক্ষেত্রে অনেকেই পুরো টাকা পেমেন্ট না করে নূন্যতম অর্থ পেমেন্ট করেন। ঠিক আছে যদি বারবার ঘটতে থাকে সেক্ষেত্রে ক্রেডিট স্কোর কমে যেতে পারে।

আরোও পড়ুন » Low CIBIL Score Loan: আপনি কি লোন নিতে চান? কম সিবিল স্কোর কিভাবে বৃদ্ধি করবেন দেখে নিন সহজ উপায়।

২) নতুন ঋণ গ্রহণের প্রভাব

নতুন করে ঋণ গ্রহণের কারণেও ক্রেডিট স্কোর অনেকটা নেমে যেতে পারে। সম্প্রতি একটি তথ্য মারফত দেখা গেছে এক মহিলা ব্যাংক গ্রাহকের ক্রেডিট স্কোর ৮৪৮ থেকে ৪০ পয়েন্টে নেমে গেছে। অথচ তিনি সমস্ত ইএমআই সঠিক সময় পেমেন্ট করেছিলেন। পরবর্তীতে খোঁজ নিয়ে দেখা যায় একটি ঋণের পর তিনি অপর একটি গৃহঋণ নিয়েছিলেন। দ্বিতীয় দিনটি শুরু হওয়ার সাথে সাথেই তার ক্রেডিট স্কোর নামতে শুরু করে। তবে পরে যখন তিনি সেই ঋণ পরিশোধ করেন তখন আবার তার ক্রেডিট স্কোর উন্নত হয়।

৩) ক্রেডিট লিমিট

গ্রাহকের কাছে ক্রেডিট কার্ড থাকলেই তাকে যতবার ইচ্ছা ব্যবহার করা উচিত নয়। ক্রেডিট স্কোর ধরে রাখতে গেলে ক্রেডিট কার্ড ব্যবহার করার ক্ষেত্রে কিছু লিমিট মেনে চলতে হবে। ক্রেডিট কার্ড ব্যবহারের ক্ষেত্রে ক্রেডিট লিমিটের ৬০ শতাংশের বেশি টাকা খরচ করা কখনোই উচিত নয়। ক্রেডিট লিমিটের ৬০ শতাংশ খরচ হয়ে গেলেই ক্রেডিট স্কোর ধীরে ধীরে কমতে শুরু করে। তবে এক্ষেত্রে বিল মেটালে ক্রেডিট স্কোর পরবর্তীত ৩ মাসের মধ্যে আবার বাড়তে থাকে।

উন্নত ক্রেডিট স্কোরের পরিসংখ্যান

ব্যাংক গ্রাহকের মনে অনেক সময় প্রশ্ন আসে ঠিক কত পরিমান ক্রেডিট স্কোরকে ভালো মানের বলে চিহ্নিত করা যায়। বিভিন্ন সংস্থার ক্ষেত্রে এই পরিসংখ্যানের মধ্যে ভিন্নতা থাকতে পারে। তবে মোটামুটি দেখা গেছে ৭৫০ বা তার উর্ধ্বের ক্রেডিট স্কোরকে ভালো বলা যায়। তবে ৭০০ বা তার আশেপাশে থাকা ক্রেডিট স্কোর নিয়েও লোন নেওয়া সম্ভব। তবে ক্রেডিট স্কোরের সীমানা মূলত ৩০০ থেকে ৮৫০ এর মধ্যে থাকাই উচিত।

অবশ্যই পড়ুন » সিবিল স্কোর বৃদ্ধি করতে চান? এই ভাবে আপনার ক্রেডিট কার্ডটিকে ব্যবহার করুন।

এই ধরনের আর্থিক সংক্রান্ত তথ্য সহজ বাংলা ভাষায় পেতে আমাদের টেলিগ্রাম এবং হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপে যুক্ত হন 👇

আমাদের হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপJoin Us
আমাদের হোয়াটসঅ্যাপ চ্যানেলFollow Us
আমাদের টেলিগ্রাম চ্যানেলJoin Us
আমাদের ফেসবুক পেজFollow Us
Google নিউজে ফলো করুনFollow Us