শেয়ার বাজার মিউচুয়াল ফান্ড পোস্ট অফিস স্কিম ব্যাঙ্ক স্কিম ক্রেডিট কার্ড ডিমেট অ্যাকাউন্ট ইন্সুরেন্স সমস্ত FD ক্যালকুলেটর

WBBCCS: রাজ্যের বেকার যুবক-যুবতীরা ব্যবসা করার জন্য পাবে 5 লক্ষ টাকা, 250 কোটি টাকা বরাদ্দ করল রাজ্যে সরকার।

Photo of author

By Anjan Mahata

গ্রুপে যুক্ত হনচ্যানেলে যুক্ত হন

গতকাল অর্থাৎ বৃহস্পতিবার পশ্চিমবঙ্গ বিধানসভায় বাজেট ঘোষণা করলেন রাজ্যের অর্থমন্ত্রী চন্দ্রিমা ভট্টাচার্য। এদিন বাজেটে একাধিক লক্ষী ভান্ডার থেকে শুরু করে একাধিক প্রকল্পে বরাদ্দ বৃদ্ধি করলো রাজ্য সরকার। এদিন বাজেট ঘোষণার পর তরুণদের মনে খুশির জোয়ার বইছে। কারণ রাজ্য সরকার ভবিষৎ ক্রেডিট কার্ড প্রকল্পেও বরাদ্দের পরিমান বাড়িয়েছে।

ভবিষৎ ক্রেডিট কার্ড স্কিম (WBBCCS)

প্রসঙ্গত, গত ২০২৩ সালের ১লা এপ্রিল ভবিষৎ ক্রেডিট কার্ড স্কিম নামক একটি নতুন প্রকল্পের সূচনা করেন বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি। এই প্রকল্পের অধীনে ৫ লক্ষ টাকা পর্যন্ত ঋণ নেওয়া যায়। রাজ্যের মানুষকে বিশেষ করে তরুণদের ব্যবসা করার প্রতি উৎসাহ জাগাতে এই প্রকল্পের সূচনা করেন মুখ্যমন্ত্রী। মূলত ক্ষুদ্র উদ্যোগীদের কথা মাথায় রেখে এই প্রকল্প আনা হয়েছে।

ভবিষ্যত ক্রেডিট কার্ডের উদ্দেশ্য হলো রাজ্যের যুবক যুবতীরা যারা ক্ষুদ্র উদ্যোগ স্থাপন করতে চান তাদের ঋণ দিয়ে আর্থিক সহায়তা প্রদান করা। গ্রামীণ এলাকায় কর্মসংস্থান বৃদ্ধি করতেই এই প্রকল্প আনা হয়েছে। এখানে ৫ লক্ষ টাকার ঋণ পাওয়া যাবে ব্যাংক থেকে। এই অর্থ দিয়ে ম্যানুফ্যাকচারিং, সাইবার ক্যাফে, বিউটি পার্লার ইত্যাদি খুলতে পারবেন। ১৮ বছর বয়স থেকে ৫৫ বছর বয়সী যে কেউ ভবিষৎ ক্রেডিট কার্ডের মাধ্যমে লোন নিতে পারবেন।

কেন্দ্র সরকারের প্রকল্প » Lakhpati Didi: লাখপতি দিদি প্রকল্প! 3 কোটি স্বনির্ভর গোষ্ঠীর মহিলারা পাবে এই প্রকল্পের সুবিধা।

২৫০ কোটি টাকা বরাদ্দ করলো রাজ্য

আর গতকাল রাজ্যের বিধানসভায় বাজেট ঘোষণায় ভবিষ্যৎ ক্রেডিট কার্ডের বাজেট বৃদ্ধি করা হলো। আগামী কয়েক বছরের জন্য বার্ষিক ২৫০ কোটি টাকা বরাদ্দ করলো রাজ্য। এর ফলে উপকৃত হবে রাজ্যের ১০ লক্ষ যুবক যুবতী। এই প্রকল্পকে আরও শক্তিশালী করে তুলতেই এই উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। এর উদ্দেশ্যে রাজ্যের অর্থমন্ত্রী চন্দ্রিমা ভট্টাচার্য “Bhabishyat Credit Card Interest Sub-vention Scheme” চালু করার প্রস্তাব রেখেছেন।

সুদের হার

এর উদ্দেশ্য রাজ্যের সমস্ত ক্ষুদ্র উদ্যোগপতিদের কোনো Collateral ছাড়াই ১০০ শতাংশ নিশ্চিত ঋণ প্রদান করা। এই ঋণ পরিশোধ করতে হবে মাত্র ৪ শতাংশ সুদের হারে। বাকি সুদ বহন করবে রাজ্য সরকার। Interest Sub-vention হিসাবে সুদের ক্ষেত্রে এই ভর্তুকি দেবে রাজ্য। ভবিষ্যৎ ক্রেডিট কার্ডের মাধ্যমে ইতিমধ্যে যারা ঋণ নিয়েছেন তাদের ক্ষেত্রেও Interest Sub-vention প্রযোজ্য হবে।

ভবিষৎ ক্রেডিট কার্ড স্কিমের আবেদন পত্র ডাউনলোড করুন » Download Application Form

রাজ্য সরকারের প্রকল্প » WB Sishu Saathi Scheme: রাজ্য সরকারের শিশু সাথী প্রকল্প! শিশুর চিকিৎসা মিলবে বিনামূল্য, অনলাইনে আবেদন করুন।

এই ধরনের অর্থনীতি সম্পর্কিত তথ্য সহজ বাংলা ভাষায় পেতে আমাদের সঙ্গে যুক্ত থাকুন 👇

আমাদের হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপJoin Us
আমাদের হোয়াটসঅ্যাপ চ্যানেলFollow Us
আমাদের টেলিগ্রাম চ্যানেলJoin Us
আমাদের ফেসবুক পেজFollow Us
Google নিউজে ফলো করুনFollow Us