শেয়ার বাজার মিউচুয়াল ফান্ড পোস্ট অফিস স্কিম ব্যাঙ্ক স্কিম ক্রেডিট কার্ড ডিমেট অ্যাকাউন্ট ইন্সুরেন্স সমস্ত FD ক্যালকুলেটর

Post Office Scheme: পোস্ট অফিসের এই স্কিমে টাকা ডবল হবার গ্যারান্টি দেয় সরকার, ৫ লক্ষ টাকা হবে ১০ লক্ষ

Photo of author

By Joydeep

গ্রুপে যুক্ত হনচ্যানেলে যুক্ত হন

Post Office Scheme Double Money: এখনো পর্যন্ত অনেকেই বিনিয়োগ করার জন্য পোস্ট অফিসের স্কিমেগুলি কে সবচেয়ে সেরা বিকল্প মনে করেন। পোস্ট অফিসে বিনিয়োগ করার জন্য অনেক স্কিম রয়েছে, তবে আজ আমরা যে স্কিম সম্পর্কে জানবো সেখানে আপনি টাকা বিনিয়োগ করে ডবল করতে পারবেন। এটি আপনার বিশ্বাস না হলেও সত্যিই। এতে টাকা ডবল হবার গ্যারান্টি দেয় সরকার। আপনি যদি এতে ৫ লক্ষ টাকা বিনিয়োগ করেন তাহলে ১০ লক্ষ টাকা হবে এবং ১০ লক্ষ টাকা বিনিয়োগ করলে ২০ লক্ষ টাকা হবে। এই  Post Office Scheme-এ বিনিয়োগ করে নিজের টাকা ডবলব করতে চান, তাহলে অবশ্যই আজকের প্রতিবেদনটি মনোযোগ সহকারে পড়ুন।

পোস্ট অফিসের টাকা ডাবল স্কিম (Post Office Scheme Double Money)

বিনিয়োগ করার জন্য পোস্ট অফিসে একাধিক স্কিম রয়েছে, তবে আজ আমরা যে স্কিমের সম্পর্কে আলোচনা করছি তার নাম কিষান বিকাশ পত্র (Kisan Vikas Patra – KVP)। আপনি যদি নিজের টাকা ডবল করতে চান তাহলে পোস্ট অফিসের এই স্কিমে বিনিয়োগ করতে পারবেন। কিষান বিকাশ পত্র স্কিমে বর্তমে ৭.৫০ শতাংশ চক্রবৃদ্ধি সুদ দেওয়া হচ্ছে। আপনি এখানে একক এবং যৌথ অ্যাকাউন্ট খুলে বিনিয়োগ করতে পারবেন। এখন আপনি যদি এই স্কিমে টাকা বিনিয়োগ করেন তাহলে ১১৫ মাসেই অর্থাৎ ৯ বছর ৭ মাসেই আপনার টাকা ডবল হবে। এটি একটি সরকারি স্কিম তাই এতে কোনো প্রকার ঝুঁকির ভয়ও নেই। 

এতে বিনিয়োগ করার পর যদি আপনার কোনো কারণে টাকা তুলে নিতে হয়, তাহলে বিনিয়োগের দিন থেকে ২ বছর ৬ মাস পর অকাল প্রত্যাহার করতে পারবেন। আবার, কিছু বিশেষ পরিস্থিততে আপনি যেকোনো সময় টাকা তুলেনিতে পারবেন। যেমন KVP অ্যাকাউন্টধারির মৃত্যু হলে, গ্যাজেট অফিসারের ক্ষেত্রে, বন্ধকী কর্তৃপক্ষ বাজেয়াপ্ত করলে এবং আদালতে আদেশ দিলে টাকা তুলে নেওয়া যাবে।

আরও পড়ুন: Post Office Scheme: মাসে ৫০০ টাকা করে জমা করলেই হবেন “লাখপতি”! পোস্ট অফিসের এই স্কিম সম্পর্কে অবশ্যই জানা দরকার।

কারা কারা বিনিয়োগ করতে পারবেন?

এই Post Office Scheme-এ সমস্ত প্রাপ্তবয়স্ক ভারতীয় নাগরিকরা অ্যাকাউন্ট খুলে অর্থ বিনিয়োগ করতে পারবেন। তাছাড়া এখানে ১০ বছর এর বেশি বয়সী শিশুরাও তাদের নামে অ্যাকাউন্ট খুলতে পারবেন। আবার একজন অপ্রাপ্তবয়স্ক শিশু এবং অস্বাস্থ্যকর মনের ব্যাক্তির জন্য একজন অভিবাবক  KVP অ্যাকাউন্ট খুলে তাতে অর্থ বিনিয়োগ করতে পারবেন। তবে NRI ব্যাক্তিরা এতে অ্যাকাউন্ট খুলতে পারবেন না।

আরও পড়ুন: Post Office RD – পোস্ট অফিসের এই স্কিমে মাত্র ১৫০ টাকা করে জমা করলেই ৫ বছর পর ৩ লাখ টাকা পাবেন।

কিভাবে অ্যাকাউন্ট খুলবেন?

আপনি নিকটবর্তী পোস্ট অফিসে গিয়ে খুব সহজেই Kisan Vikas Patra (KVP) স্কিমের জন্য অ্যাকাউন্ট খুলতে পারবেন। এরজন্য আপনার আধার কার্ড, প্যান কার্ড, বয়সের প্রমাণপত্র, পাসপোর্ট সাইজ ফটো এবং কিষান বিকাশ পত্র স্কিমের আবেদন পত্রের প্রয়োজন হবে। তবে এখানে অ্যাকাউন্ট খোলার আগে পোস্ট অফিসের কর্মীর কাছ থেকে এই স্কিম সম্পর্কে বিস্তারিত তথ্য আরেকবার ভালোভাবে বুঝে নিতে হবে।

আরও পড়ুন: পোস্ট অফিসের এই স্কিমে ৯ লক্ষ টাকার বেশি বিনিয়োগ করেছেন PM মোদী! আপনি বিনিয়োগ করলে কতো রিটার্ন পাবেন জানুন।

এই ধরনের অর্থনীতি সম্পর্কিত তথ্য সহজ বাংলা ভাষায় পেতে আমাদের যুক্ত থাকুন 👇

আমাদের হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপJoin Us
আমাদের হোয়াটসঅ্যাপ চ্যানেলFollow Us
আমাদের টেলিগ্রাম চ্যানেলJoin Us
আমাদের ফেসবুক পেজFollow Us
Google নিউজে ফলো করুনFollow Us