শেয়ার বাজার মিউচুয়াল ফান্ড পোস্ট অফিস স্কিম ব্যাঙ্ক স্কিম ক্রেডিট কার্ড ডিমেট অ্যাকাউন্ট ইন্সুরেন্স FD ক্যালকুলেটর

Gold Purity Test: এই 3 উপায়ে সোনার বিশুদ্ধতা পরীক্ষা করুন, সোনা কেনার আগে অবশ্যই দেখুন।

Photo of author

By Anjan Mahata

গ্রুপে যুক্ত হনচ্যানেলে যুক্ত হন

Gold Purity Test: সোনা খুবই মূল্যবান ধাতু। সেই প্রাচীন কাল থেকেই সোনার মূল্য শিখরে রয়েছে। আগেকার সময়ে মুদ্রা ও গহনা হিসাবে সোনার অত্যাধিক ব্যবহার হলেও, বর্তমান সময়ে সোনার বিনিয়োগের অন্যতম মাধ্যম হয়ে উঠেছে। এছাড়া বিয়ে বাড়ি থেকে যে কোনো অনুষ্ঠানে সোনার কেনা বেচা তো লেগেই রয়েছে। আর এই সোনার দাম বিভিন্ন দিন ওঠা নামা করে। বিভিন্ন ক্যারেট অনুযায়ী সোনার দাম কম বেশি হয়ে থাকে।

সোনার বিশুদ্ধতা পরীক্ষা (Gold Purity Test)

আপনিও কি অর্থ খরচ করে সোনা কিনবেন বলে ভাবছেন? কিন্তু ঠকে যাওয়ার ভয় হচ্ছে? ভাবছেন কীভাবে আসল সোনা ও নকল সোনা বুঝবেন? চিন্তা নেই, আজ আপনাদের সেই উত্তর নিয়ে হাজির হয়েছি। আসল সোনা কেনার জন্য যে অর্থ খরচ করছেন, আসলেই সেই পরিমান সোনা আপনি পাচ্ছেন কিনা বুঝতে হলে পুরো প্রতিবেদনটি পড়ুন।

এক্স-রে এর মাধ্যমে খাঁটি সোনা পরীক্ষা

অতীতে ভারতে খাঁটি সোনা পরীক্ষা (Gold Purity Test) করার জন্য একমাত্র উপায় ছিল সোনা গলিয়ে আসল সোনা পরিমাপ করা। এছাড়া সোনা পরীক্ষার জন্য আরও দুটি পদ্ধতি ব্যবহার করা হতো। প্রথমটি ক্যারোটোমিটারের যন্ত্রের সাহায্যে এবং দ্বিতীয়টি এসিড পরীক্ষার মাধ্যমে। তবে ক্যারোটোমিটারের যন্ত্রের সাহায্যে এক্স-রে করে সোনার বিশুদ্ধতা রিডিং করা খুব কঠিন ছিল। কারণ এক্স-রে সোনায় মিশ্রিত ইরিডিয়াম শনাক্ত করতে পারতো না। দ্বিতীয়ত, এক্স রে একটি নির্দিষ্ট মাইক্রনের নীচে যেতে পারে না।

অ্যাসিড জলে চুবিয়ে সোনার বিশুদ্ধতা পরীক্ষা

এক্স রে এর মাধ্যমে সোনার বিশুদ্ধতা পরীক্ষা (Gold Purity Test) ছাড়াও আরও একটি জনপ্রিয় পরীক্ষা হলো অ্যাসিড পরীক্ষা। যেখানে সোনার বিশুদ্ধতা পরীক্ষা করার জন্য গহনাকে নাইট্রিক অ্যাসিড জলে চোবানো হয়। সোনা নাইট্রিক অ্যাসিডে প্রতিক্রিয়া করে না। তবে সোনায় অন্য ধাতু মিশ্রিত থাকলে তা সবুজ হয়ে যায়। তবে এতেও সমস্যা রয়েছে। এর মাধ্যমে সোনার গহনার জয়েন্টগুলির বিশুদ্ধতা পরিমাপ করা যায় না।

অবশ্যই পড়ুন » Gold Buying Rules 2023: সোনা কেনার উপর আয়কর দপ্তরের গুরুত্বপূর্ন আইন, উলঙ্ঘন করলে সমস্যায় পড়বেন

আলফানিউমেরিক কোড চেকিং

বর্তমান সময়ে সোনার বিশুদ্ধতা পরীক্ষার সবচেয়ে জনপ্রিয় ও বহু ব্যবহৃত মাধ্যম হলো আলফানিউমেরিক কোড চেকিং। সোনাতে ছয় সংখ্যার এই কোড থাকে। যাকে হলমার্ক বা HUID নম্বরও বলা হয়। Bureau of Indian Standards বা BIS অ্যাপ থেকে সহজেই হলমার্ক নম্বর চেক করা যায়। গত বছরের ১লা এপ্রিল থেকে সোনার গহনায় ছয় সংখ্যা বিশিষ্ট হলমার্ক নম্বর ব্যবহার বাধ্যতামূলক করে দিয়েছে কেন্দ্র। এত ফলে সোনার বিশুদ্ধতা পরীক্ষা (Gold Purity Test) করা এখন আরও সহজ হয়ে উঠেছে।

অবশ্যই পড়ুন » Gold Tax: বাড়িতে বেশি সোনা রাখলে বিপদ! সরকারকে দিতে হবে মোটা টাকা ট্যাক্স

এই ধরনের অর্থনীতি সম্পর্কিত তথ্য সহজ বাংলা ভাষায় পেতে আমাদের সঙ্গে যুক্ত থাকুন 👇

আমাদের হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপJoin Us
আমাদের হোয়াটসঅ্যাপ চ্যানেলFollow Us
আমাদের টেলিগ্রাম চ্যানেলJoin Us
আমাদের ফেসবুক পেজFollow Us
Google নিউজে ফলো করুনFollow Us